বৃহস্পতিবার (৩১ অক্টোবর) জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কারের গেজেট প্রকাশ করা হবে। তথ্যটি নিশ্চিত করেছেন চলচ্চিত্র সেন্সর বোর্ডের ভাইস চেয়ারম্যান ও জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার জুরি বোর্ডের সদস্য নিজামূল কবীর।
তথ্য মন্ত্রণালয়ের অধীনে প্রতি বছর চলচ্চিত্রের বিভিন্ন ক্ষেত্রে অবদানের জন্য জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার দেওয়া হয়। এবার একসাথে ২০১৭ ও ২০১৮ সালে মুক্তিপ্রাপ্ত দেশি সিনেমাগুলোকে পুরস্কৃত করা হবে। দুই বছর মিলিয়ে এবার তথ্য মন্ত্রণালয়ে ৭৪টি সিনেমা জমা পড়ে ২৮টি শাখায় প্রতিদ্বন্দ্বিতা করার জন্য। ইতোমধ্যে ছবিগুলো দেখা শেষ করেছেন জুরি বোর্ডের সদস্যরা। এখন পুরস্কৃত ছবি, শিল্পী, কলাকুশলীর নাম ঘোষণা করার পালা।

এদিকে, ২০১৭ সালের জুরি বোর্ডের সদস্যরা হলেন— ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ডিপার্টমেন্ট অব টেলিভিশন ফিল্ম অ্যান্ড ফটোগ্রাফির চেয়ারম্যান অধ্যাপক শফিউল আলম ভূঁইয়া, সাংবাদিক মনজুরুল আহসান বুলবুল, চলচ্চিত্র অভিনেত্রী কোহিনুর আক্তার সুচন্দা, চলচ্চিত্র অভিনেতা ও প্রযোজক আলমগীর, বাংলাদেশ চলচ্চিত্র সমিতির সভাপতি মুশফিকুর রহমান গুলজার, চিত্রগ্রাহক পংকজ পালিত ও সঙ্গীত পরিচালক সুজেয় শ্যাম।

২০১৮ সালের জুরি বোর্ডের অন্য সদস্যরা হলেন— ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ডিপার্টমেন্ট অব টেলিভিশন ফিল্ম অ্যান্ড ফটোগ্রাফির চেয়ারম্যান অধ্যাপক শফিউল আলম ভূঁইয়া, চলচ্চিত্র অভিনেতা ড. এনামুল হক, সঙ্গীতশিল্পী ফকির আলমগীর, দৈনিক ভোরের কাগজের সম্পাদক শ্যামল দত্ত, গীতিকার ও সঙ্গীত পরিচালক হাসান মতিউর রহমান, অভিনেত্রী রওশন আরা রোজিনা, বাংলাদেশ চলচ্চিত্র সমিতির সভাপতি মুশফিকুর রহমান গুলজার ও বাংলাদেশ চিত্রগ্রাহক সংস্থার যুগ্ম–মহাসচিব তপন আহমেদ।